বুধবার, ১১ ডিসেম্বর, ২০১৯
সাবধান লবণের গুজব ছড়ানো হচ্ছে
Published : Wednesday, 20 November, 2019 at 10:12 PM

সাবধান লবণের গুজব ছড়ানো হচ্ছেস্টাফ রিপোর্টার॥ লবণের প্রাপ্যতা নিয়ে কেউ গুজব ছড়ালে কঠোর আইনানুগ ব্যবস্থা নেয়া হবে বলে জানিয়েছে সরকার। মঙ্গলবার তথ্য অধিদফতর এক প্রেস নোটে এ তথ্য জানিয়েছে। দেশে লবণ সংকট দেখা দেবে বলে গুজব ছড়িয়ে পড়েছে। এ বিষয়ে সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে নানা প্রচারণাও চালানো হচ্ছে। দেশের বিভিন্ন স্থানে ইতোমধ্যে লবণের দাম বাড়িয়ে দিয়েছে এক শ্রেণির অসাধু ব্যবসায়ী। এই প্রেক্ষাপটে প্রেস নোট জারি করল সরকার। এতে বলা হয়, একটি মহল পরিকল্পিতভাবে দেশে গুজব ছড়ানোতে লিপ্ত রয়েছে। সম্প্রতি দেশে লবণের প্রাপ্যতা নিয়েও গুজব ছড়ানোর একটি অপচেষ্টা চলছে। ইতোমধ্যে শিল্প মন্ত্রণালয় থেকে এ বিষয়ে গণমাধ্যমে জানানো হয়েছে যে, প্রকৃতপক্ষে দেশে লবণের পর্যাপ্ত মজুত রয়েছে এবং ডিসেম্বর মাসেই দেশে নতুন লবণ উৎপাদিত হয়ে বাজারে আসবে। বর্তমান মজুতের সঙ্গে যোগ হবে নতুন উৎপাদিত লবণ। ফলে দেশে লবণের কোনা সংকট নেই বা এমন কোন সম্ভাবনাও নেই। লবণ নিয়ে কিংবা অন্য কোন বিষয়ে কোন ব্যক্তি বা মহল সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে বা অন্য যে কোনোভাবে গুজব ছড়ানোর চেষ্টা করলে তাদের বিরুদ্ধে কঠোর আইনানুগ ব্যবস্থা নেয়া হবে বলে প্রেস নোটে উল্লেখ করা হয়েছে। এদিকে দেড় মাসের বেশি সময় ধরে অস্থিরতা চলছে পেঁয়াজের বাজারে। এ সংকটের মধ্যে বাড়তে শুরু করেছে চালের দাম। তার মধ্যে আবার গুজব রটিয়ে লবণের বাজারেও হুলস্থুল বঁধানোর পাঁয়তারা করছে অসাধু চক্র। এমন পরিস্থিতি করণীয় ঠিক করতে জরুরি বৈঠকে বসতে চলেছে দেশের ব্যবসায়ীদের শীর্ষ সংগঠন ফেডারেশন অব বাংলাদেশ চেম্বার অব কমার্স অ্যান্ড ইন্ডাস্ট্রি (এফবিসিসিআই)।
রবিবার হতে চলা ওই বৈঠকে নিত্যপণ্যের দাম নিয়ন্ত্রণে রাখার বিষয়ে ব্যবসায়ীদের করণীয়সহ বাজার মনিটরিংয়ের বিষয়ে আলোচনা হবে বলে জানিয়েছেন এফবিসিসিআইয়ের সিনিয়র সহ সভাপতি মুনতাকিম আশরাফ। মঙ্গলবার তিনি বলেন, ‘আমরা একটি টিম গঠন করছি তারা এ বিষয়ে বাজার মনিটরিং করছে। আসলেই বাজারে পণ্য সংকট না সংকট কেউ সৃষ্টি করছে এ বিষেয়ে কাজ করছেন তারা।’ রবিবারের বৈঠকের বিষয়ে জানতে চাইলে তিনি বলেন, ‘বাজারের বিদ্যমান পরিস্থিতিতে ব্যবসায়ীদের করণীয় বিষয়ে আলোচানা হবে। এখানে সকল স্টেকহোল্ডারদের ডাকা হয়েছে।’ ‘আমরা মনিটরিং করে দেখবো কোথায় কী পণ্যের চাহিদা রয়েছে। সে চাহিদা মেটাতে সরবরাহে কোনও ঘাটতি আছে কি না। পণ্যের চাহিদা অনুযায়ী যেন যোগানের ব্যবস্থা থাকে সে বিষয়ে কাজ আমরা ব্যবসায়ীদের সঙ্গে কথা বলবো।’
গুজব ছড়িয়ে পণ্যের দাম বাড়ানোর বিষয়ে ব্যবসায়ীদের শীর্ষ সংগঠন হিসেবে এফবিসিসিআই কি কাজ করছে প্রশ্নে মুনতাকিম আশরাফ বলেন, ‘আমরা এ বিষয় ব্যবসায়ীদের সচেতন করছি। তারা যেন গুজবে কান না দেয়।’
এফবিসিসিআই এরইমধ্যে ব্যবসায়ী প্রতিনিধিদের বৈঠকের বিষয়ে জানিয়েছে। বৈঠকে সব স্তরের স্টেক হোল্ডারদের আমন্ত্রণ জানানো হয়েছে।







সম্পাদক : জয়নাল হাজারী।  ফোন : ০২-৯১২২৬৪৯
মোঃ ইব্রাহিম পাটোয়ারী কর্তৃক ফ্যাট নং- এস-১, জেএমসি টাওয়ার, বাড়ি নং-১৮, রোড নং-১৩ (নতুন), সোবহানবাগ, ধানমন্ডি, ঢাকা থেকে প্রকাশিত
এবং সিটি প্রেস, ইত্তেফাক ভবন, ১/আর কে মিশন রোড, ঢাকা-১২০৩ থেকে মুদ্রিত।
আবু রায়হান (বার্তা সম্পাদক) মোবাইল : ০১৯৬০৪৯৫৯৭০ মোবাইল : ০১৯২৮-১৯১২৯১। মো: জসিম উদ্দিন (চীফ রিপোর্টার) মোবাইল : ০১৭২৪১২৭৫১৬।
বার্তা বিভাগ: ৯১২২৪৬৯, বিজ্ঞাপন ও সার্কুলেশন: ০১৯৭৬৭০৯৯৭০ ই-মেইল : [email protected], Web : www.hazarikapratidin.com
এই ওয়েবসাইটের কোনো লেখা বা ছবি অনুমতি ছাড়া নকল করা বা অন্য কোথাও প্রকাশ করা সম্পূর্ণ বেআইনি